জাপানে পটকা মাছ না কিনতে সতর্কতা জারি

প্রবাসীর দিগন্ত | আন্তর্জাতিক ডেস্ক : জানুয়ারী ১৭, ২০১৮

জাপানে পটকা মাছ কেনার ক্ষেত্রে জরুরি সতর্কতা জারি করা হয়েছে। ভুল করে মাছের অত্যন্ত ক্ষতিকর অংশসহ বিক্রির পর এ নিয়ে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়লে এ সতর্ককর্তা জারি করা হয়।

গামাগোরি শহরের স্থানীয় একটি সুপারমার্কেট থেকে পাঁচ প্যাকেট পটকা মাছ বিক্রি করা হয়। এসব মাছের বিষযুক্ত যকৃত অপসারণ না করেই বিক্রি করা হয়েছিল। পাঁচ প্যাকেটের মধ্যে তিন প্যাকেট মাছের সন্ধান পাওয়া গেছে। তবে, দুই প্যাকেট এখনো পাওয়া যায়নি। পটকা মাছ খুবই সুস্বাদু খাবার হলেও এর যকৃত মারাত্মক বিষাক্ত। এই ছোট ভুলের কারণে বড় ধরনের দুর্ঘটনা ঘটতে পারে।

প্রতি বছর দেশটিতে পটকা মাছের বিষক্রিয়ায় কিছুসংখ্যক লোক আক্রান্ত হয়। তবে সব ক্ষেত্রে প্রাণঘাতী হয় না। জাপানের মধ্যাঞ্চলে গামাগোরি শহর কর্তৃপক্ষ জরুরি সেবা চালু করেছে। জনগণকে পটকা মাছের সম্ভাব্য প্রাণঘাতী অংশ খাওয়া থেকে বিরত থাকতে অনুরোধ জানিয়েছে তারা।

গামাগোরি শহরে জরুরি মাইকিং করে জনগণকে পটকা মাছ খাওয়া থেকে বিরত থাকতে অনুরোধ করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন নগর কর্মকর্তা কোজি তাকায়ানাগি।

জাপানে শীতকালে অত্যন্ত দামি খাবার হিসেবে সয়া সস দিয়ে কাঁচা এবং স্যুপ হিসেবে পটকা মাছ খাওয়া হয়। এই মাছের যকৃত, ডিম্বাশয় ও চামড়ায় অত্যন্ত ক্ষতিকর টেট্রোডোটক্সিন বিষ থাকে। এ কারণে এটা প্রস্তুত করতে বিশেষ প্রশিক্ষণ ও লাইসেন্সের প্রয়োজন হয়। আর এই বিষের কোনো প্রতিষেধক নেই। টেট্রোডোটক্সিন স্নায়ুর কার্যকারিতায় প্রভাব ফেলে এবং অত্যন্ত দ্রুত কাজ করে। এই বিষ মুখ অসাড় করে পক্ষাঘাতগ্রস্ত করে ফেলে এবং এমনকি এতে মানুষের মৃত্যু হয়। 

তথ্য:

বিভাগ:

প্রকাশ: জানুয়ারী ১৭, ২০১৮

সর্বমোট পড়েছেন: 686 জন

মন্তব্য: 0 টি

সূত্র: বিবিসি অনলাইন

সংশ্লিষ্ট সংবাদ