ভারতের কেরালা রাজ্যে ভূমিধসে ২০ জনের মৃত্যু

প্রবাসীর দিগন্ত | আন্তর্জাতিক ডেস্ক : অগাস্ট ৯, ২০১৮

প্রবল বৃষ্টিপাতের কারনে ভারতের কেরালা রাজ্যে ভূমিধসে কমপক্ষে ২০ জনের মৃত্যু হয়েছে। বন্যার আশঙ্কায় কচিন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর বৃহস্পতিবার দুপুর থেকে বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। 

কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, যে সব ফ্লাইট বিমানবন্দর ছেড়ে যাওয়ার কথা সেগুলো যথারীতি ছেড়ে যাবে। রানওয়ে ডুবে যাওয়ার আশঙ্কা থেকে কেবল বিমানবন্দরে অবতরণ বন্ধ রাখা হয়েছে।

কর্মকর্তারা আশঙ্কা করছেন, চিরুথনি বাঁধ থেকে পানির ঢল নামায় পিরিয়ার নদীর পানি আরো বাড়তে পারে।

এনডিটিভি অনলাইন জানিয়েছে, ইদুক্কি জেলায় ১১ জনের মৃত্যু হয়েছে, মালাপ্পুরাম জেলায় ছয়জন, কোঝিকোদি জেলায় দুজন এবং ওয়াইয়ানাদ জেলায় একজনের মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া আরো তিন জেলায় এখনো বেশ কয়েকজন নিখোঁজ রয়েছে।

ইদুক্কির আদিমালি শহরে একই পরিবারের পাঁচজনের মৃত্যু হয়েছে। স্থানীয় লোকজন ও পুলিশ ওই পরিবারের অপর দুই সদস্যকে আবর্জনার স্তুপ থেকে জীবিত উদ্ধার করতে সক্ষম হয়েছে।

ইদুক্কি ও  ওয়াইয়ানাদ জেলায় উদ্ধার তৎপরতার জন্য রাজ্য সরকার সেনাবাহিনীর সহযোগিতা চেয়েছে।

পানির লেভেল বেড়ে যাওয়ায় রাজ্যের ২২ টি বাঁধ খুলে দেওয়া হয়েছে। ধারণক্ষমতার অতিরিক্ত পানি হয়ে যাওয়ায় ২৬ বছর খুলে দেওয়া হয়েছে ইদুক্কি বাঁধ।

মুখ্যমন্ত্রী পিনারাই ভিজয়া বলেছেন, ‘সেনাবাহিনী, নৌবাহিনী, এনডিআরফের কাছ থেকে সহযোগিতা চাওয়া হয়েছে। এনডিআরএফের তিনটি টিম আলাপ্পুঝা,  ওয়াইয়ানাদ ও কোঝিকোদিতে কাজ করছে। আরো দুটি টিমকে পাঠানো হয়েছে। কেরালায় অতিরিক্ত ছয়টি টিম পাঠানোর জন্য কেন্দ্রীয় সরকারকে বলা হয়েছে।

তথ্য:

বিভাগ:

প্রকাশ: অগাস্ট ৯, ২০১৮

সর্বমোট পড়েছেন: 311 জন

মন্তব্য: 0 টি

সংশ্লিষ্ট সংবাদ